1. admin@protidinershomoy.com : admin :
  2. protidinershomoy@gmail.com : Showdip : Meherabul Islam সৌদিপ
  3. nasimriyad24@gmail.com : বার্তা সম্পাদক : বার্তা সম্পাদক
বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০, ০৩:১১ অপরাহ্ন

ইউনিয়ন আ.লীগের সভাপতি ও ছাত্রলীগের সম্পাদকে কারণ দর্শানোর নোটিশ

সংবাদ দাতার নাম
  • সময় : বৃহস্পতিবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২০
  • ২৩৮ Time View

শামীম মিয়া, মির্জাপুর, টাঙ্গাইলঃ

গত ১৩ এপ্রিল টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে ১০ টাকা কেজি দরের চাল বিতরণের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচিতে ওজনে কম দেয়ার অপরাধে অর্থ-দণ্ডপ্রাপ্ত উপজেলার ৮নং ভাতগ্রাম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ১০ টাকা কেজি দরের চালের ডিলার মোঃ আশরাফুল আলম বাচ্চু(৫৮)ও তার সহযোগী একই ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম খান(২২)এই দুই জনকে আগামী ০৭ দিনের কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন উপজেলা আওয়ামীলীগ ও ছাত্রলীগ।

বৃহস্পতিবার উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো.একাব্বর হোসেন এম.পির নিজ বাসভবনে ত্রাণ বিতরণ কঠিটি গঠিত আলোচনা সভায় ভাতগ্রাম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি দন্ডপ্রাপ্ত আশরাফুল আলম বাচ্চুর বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মীর শরীফ মাহমুদ এবং একই দিন সন্ধ্যায় উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো.সাদ্দাম হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম সিয়াম স্বাক্ষরিত এক “প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে” জানা যায় খাদ্যবান্ধব কর্মসূচিতে অনিয়মের সাথে জড়িত থাকার দায়ে ভাতগ্রাম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম খানকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো.সাদ্দাম হোসেন।

উল্লেখ্য, গত ১৩ এপ্রিল খাদ্যবান্ধব কর্মসূচিতে অনিয়মের দায়ে ৮ নং ভাতগ্রাম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ১০ টাকা কেজি দরের চালের চালের ডিলার আশরাফুল আলম বাচ্চু (৫৮) এবং তার সহকারি একই ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম খানকে (২২) দেড় লক্ষ টাকা অর্থদন্ড অনাদায়ে ১৫ দিনের কারাদন্ড দেন ভাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো.আবদুল মালেক।

হতদরিদ্র নির্বাচিত পরিবারকে ৩০ কেজি করে চাল সরকার নির্ধারিত মূল্যে সরবরাহে পরিমাণে কম দেয়া হচ্ছে এমন গোপন তথ্যে গত সোমবার (১৩ এপ্রিল) তাৎক্ষণিক অভিযান চালায় প্রশাসন। উপজেলার দুল্যাবেগম বাজার গিয়ে হাতেনাতে প্রমাণও মেলে। প্রতি ৩০ কেজির জায়গায় পরিমাপে দেখা যায় উপকার ভোগীদের জনপ্রতি ২-৩ কেজি চালে কম দেয়া হয়েছে। চাল বিতরণের নিয়ম তোয়াক্কা না করেই অনেকের সুপারিশের ভিত্তিতে অনির্বাচিত কার্ড হীনদের চাল দেয়ার অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় তাদের অর্থদন্ড দেয়া হয়।

এদিকে ঘটনার দিনই খাদ্যবান্ধব কর্মসূচিতে ডিলারের নীতিমালা ও অঙ্গীকার নামার শর্ত লঙ্ঘনের দায়ে বাচ্চুর ডিলারশিপও/ লাইসেন্স বাতিল করা হয়।

“খাদ্যবান্ধব কর্মসূচিতে অনিয়ম-দুর্নীতি কেনো দলের ভাবমূর্তি নষ্ট করে না” এই কারণ আগামী ০৭ দিনের মধ্যে দর্শাতে না পারলে গঠনতন্ত্রের বিধান মোতাবেক তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগ।

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You cannot copy content of this page