1. admin@protidinershomoy.com : admin :
  2. protidinershomoy@gmail.com : Showdip : Meherabul Islam সৌদিপ
  3. mamunshohag7300@gmail.com : মামুন সোহাগ : মামুন সোহাগ
  4. nasimriyad24@gmail.com : বার্তা সম্পাদক : বার্তা সম্পাদক
  5. protidinershomoy24@gmail.com : Abir Ahmed : Abir Ahmed
  6. shujanthakurgaon@gmail.com : Sujon Islam : Sujon Islam
শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ১২:১২ অপরাহ্ন

রায়গঞ্জে একজন মানবিক চা বিক্রেতা

সংবাদ দাতার নাম
  • সময় : শুক্রবার, ৫ জুন, ২০২০
  • ৪৬১ জন পড়েছেন

এম. আবদুল্লাহ সরকার- রায়গঞ্জ প্রতিনিধিঃ
রায়গঞ্জ পৌরসভায় এক মানবিক চা বিক্রেতা স্বপন সরকার। চা বিক্রি করেই চলে সংসার। এরপরও মানবতার টানে ৬ বার রক্ত দিয়ে নিজেকে মানবিক করে তুলেছে।

আজ শুক্রবারও এক মুমূর্ষু রোগীকে রক্ত দিয়েই চা ফেরি করে বিক্রি করতে দেখা গেছে তাকে।

পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা আব্দুর রশিদের ছেলে স্বপন সরকার এ জন্য নিজকে নিয়ে গর্ব করেন। একজন চা বিক্রেতা হয়ে মানুষের উপকার করতে পারা সত্যিই আনন্দের। আর যাকে রক্ত দেয়া হয় সে সুস্থ হয়ে উঠলে বুকটা আনন্দে ভরে উঠে বলেন রক্তদাতা স্বপন সরকার।

রায়গঞ্জের ধানগড়া ব্লাড ডোনার সোসাইটির ডাকে তিনি বারবার মানবতার টানে ছুটে যান অসুস্থ্য মানুষের পাশে। কোন ভয় ডর না করেই মুখভরা হাসি নিয়েই শুয়ে পড়েন ডাক্তারের শীতল হাতের নিচে। করোনার এই ভয়াবহতার সময়ও তিনি রক্তদানে থেমে নেই।

রক্ত দেয়া শেষ হলেই চায়ের ফ্ল্যাক্স হাতে বেরিয়ে পড়েন চা বিক্রি করতে। গলি গলি চা বিক্রি করে যা আয় হয় তাই দিয়ে চলে তার সংসার।
স্ত্রী, দুই মেয়ে নিয়ে জীবনযুদ্ধে হার না মানা স্বপনের মানুষের উপকারে রক্তদানে এগিয়ে আসার পিছনে সবচেয়ে বেশি সাহস ও সহযোগীতা করেছে ধানগড়া ব্লাড ডোনার সোসাইটি।

সিরাজগঞ্জ জেলায় রায়গঞ্জ উপজেলার প্রাণকেন্দ্র রায়গঞ্জ পৌরসভায় আর্ত মানবতার সেবায় কাজ করার লক্ষে ২০১৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় ধানগড়া ব্লাড ডোনার সোসাইটি ।

এই সংগঠনের সভাপতি ডাঃ মাহমুদুল হক মাহমুদ ও সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম বলেন, ”মানবতার টানে- ভয় নাই রক্তদানে”শ্লোগানকে সামনে নিয়ে পৌর এলাকার কর্মঠ একদল স্বেচ্ছাসেবীদের নিয়ে আমরা মানুষের পাশে দাড়াতে বদ্ধপরিকর।
সেই লক্ষেই আমাদের কাজ করা। মানবিক চা বিক্রেতা স্বপনের মত আরো কয়েকজন মানবিক মানুষকে আমরা পেয়েছি যাদের কেউ কেউ ২০ বার রক্ত দিয়েছে।

এই সংগঠনের অন্যতম সদস্য রণি, রকি,রবিন,নাবিল,শোভন বলেন, আমরা মানুষের জন্য স্বার্থহীন কাজ করছি।
নিজেদের সাথে সাথে একজন চা বিক্রেতাকে মানবিক কাজে লাগাতে পেরেছি এটাই আমাদের স্বার্থকতা।

 

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You cannot copy content of this page