1. admin@protidinershomoy.com : admin :
  2. nasimriyad24@gmail.com : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:০০ অপরাহ্ন
শিরোনাম
নাগরপুরে যমুনার ভাঙন পরিদর্শনে পানি সম্পদ মন্ত্রনালয়ের সিনিয়র সচিব প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মদিনে হাসান ইকবালের শুভেচ্ছা নাগরপুরে পূজা উদযাপন পরিষদের নতুন কমিটি নাগরপুরে পূজা উদযাপন পরিষদের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ সম্ভাবনা ও সুযোগে পরিপূর্ণ একটি দেশ: জেনেভায় ভূমিমন্ত্রী ১৫ দফা দাবি মেনে নেওয়াই কাভার্ডভ্যান-ট্রাক মালিক-শ্রমিকদের ধর্মঘট প্রত্যাহার নাগরপুরে মাসকলাই বীজ ও সার বিতরণ দূর্গা পুজার শুভেচ্ছা হিসাবে ভারতে প্রথম চালানে ২৩.১৫ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানি ঠাকুরগাঁও বালিয়াতে ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল অনুষ্ঠিত ফুলবাড়ীতে চাষীদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ উদ্বোধন।

মানামীর লঞ্চের চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • সময় : মঙ্গলবার, ১৮ আগস্ট, ২০২০
  • ৯৯ জন পড়েছেন

ঢাকা-বরিশাল রুটে বিলাশবহুল লঞ্চ এম ভি মানামী মাত্র দেড় বছরের মাথায় মডেল নৌযান হিসেবে নৌ সেক্টরে স্থান করে নিয়েছে। যাত্রী সেবার পাশাপাশি স্টাফদের স্বার্থ সংরক্ষণেও উদাহরণ সৃষ্টি করেছে এম ভি মানামী। সম্প্রতি এম ভি মানামী লঞ্চের চেয়ারম্যান আব্দুস সালামের বিরুদ্ধে কতিপয় স্থানীয় অনলাইন পোর্টালে মিথ্যা সংবাদ ছেপে মানামী লঞ্চ ও এর পরিচালনা পর্ষদের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। লঞ্চটির আধুনিক সুযোগ সুবিধার কারণে যাত্রী বেশি হওয়ার এক শ্রেণির ব্যক্তি ঈর্ষান্বিত হয়ে এসব অপপ্রচারে লিপ্ত হচ্ছে। তাদের এসব অপপ্রচারে ছুরি এতটাই ধারালো যে ব্যক্তির চরিত্র হননেও তারা পিছপা হচ্ছে না।

প্রকাশিত সংবাদে বলা হয়েছে মানামী লঞ্চের চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম পরকীয়া সম্পর্কের মাধ্যমে তার চাচাতো ভাইয়ের স্ত্রীকে বিয়ে করেছেন।
এ সংবাদের মাধ্যমে একজন সম্মানিত ব্যক্তির চরিত্র হরণের অপচেষ্টা করা হয়েছে বলে মনে করেন লঞ্চের ভাইস চেয়ারম্যান মো: শরীফ।

তিনি বলেন, এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোয়াট উদ্দেশ্যপ্রণোদিত সংবাদ। তাকে সামাজিক ও ব্যবসায়িকভাবে ঘায়েল করার অপকৌশলের অংশ হিসেবে এসব গুজব ছড়ানো হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, আব্দুস সালামের চাচাতো ভাই সাইদুল ইসলাম টিপু এক হিন্দু নারীর পরকীয়ায় আসক্ত হওয়া নিয়ে তার স্ত্রী সুরভী আলম সাথীর সঙ্গে কলহের সৃষ্টি হয়। এতে তাদের সংসারে নেমে আসে চরম অশান্তি। স্বামীর পরকীয়ায় বাধা দিলে স্ত্রীর উপর দিনের পর দিন চলে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন। পারিবারিক ও সামাজিকভাবে বিষয়টির সুরাহা না পেয়ে স্ত্রী সাথী তার স্বামীর বিরুদ্ধে নারী নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেন।

এক পর্যায়ে স্বামী টিপু ক্ষিপ্ত হয়ে ওই হিন্দু নারীকে বিয়ে করেন এবং পারিবারিক ও সামাজিক চাপে ওই নারীকে হিন্দু থেকে ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত করেন। এমনকি পরকীয়া চলা অবস্থায় হিন্দু নারী গর্ভবতী হয়ে পড়লে গর্ভপাত করান বলে অভিযোগ রয়েছে।

স্বামীর পরকীয়া অত্যাচার-অনাচারে অতিষ্ঠ স্ত্রী সুরভী আলম সাথী তার ভাসুর আবদুস সালামকে ঘটনাটি জানান। সাথী ও তার সন্তানদের ভবিষ্যতের কথা বিবেচনা করে বড় ভাই হিসেবে টিপুকে পরামর্শ দেন সাথীকে নিয়ে আবারও নতুন করে সংসার শুরু করার। বদমেজাজী টিপু সেই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে। উল্টো আব্দুস সালামের সাথে অসদাচরণ করেন এবং সাথীকে বৈবাহিক সম্পর্ক ছিন্ন করার প্রস্তাব দেয়।

স্বামীর পরকীয়া এবং অত্যাচার আর অনাচারের হাত থেকে বাঁচতে সাথী বিবাহ বিচ্ছেদে সম্মত হয়। টিপু-সাথী বৈবাহিক সম্পর্ক আইনিভাবে ছিন্ন হওয়ার অনেকদিন পরে চাচাতো ভাইয়ের দুই অবুঝ সন্তান ও একজন স্বামী পরিত্যাক্তা নারীর ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে আব্দুস সালাম সাথীকে বিয়ে করেন।
আব্দুস সালামের প্রথম স্ত্রী ক্যান্সারে আক্রান্ত এবং তিনি ৩ সন্তান নিয়ে জাপানে বসবাস করছেন। প্রথম স্ত্রীর অনুমতি নিয়েই সাথীকে দ্বিতীয় স্ত্রীর মর্যাদা দেন আব্দুস সালাম। সালাম-সাথীর বিয়েকে জড়িয়ে তালাকপ্রাপ্ত স্বামী টিপুর অভিযোগ গভীর ষড়যন্ত্র, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে উল্লেখ্য করেন শরীফ।

এম ভি মানামীর চেয়ারম্যানের পাশাপাশি আধুনিক লঞ্চটিকে নিয়েও মিথ্যা ও বানোয়াট সংবাদ পরিবেশন করা হচ্ছে। বলা হয়েছে বিআইডব্লিউটিএর নির্দেশনা অমান্য করে লঞ্চ চালানো হচ্ছে। অথচ বিআইডব্লিউটিএর দায়িত্বশীল ব্যক্তির কোন বক্তব্য প্রকাশ করা হয়নি প্রকাশিত সংবাদে। এমভি মানামী ঢাকা বরিশাল রুটে ২০১৯ সালে চালু হয়। অত্যাধুনিক প্রযুক্তি, উন্নত যাত্রী সেবা, অনলাইন আপ্যের মাধ্যমে টিকিট সার্ভিস, ওয়াইফাই সার্ভিস, এন আই ডি কার্ডের মাধ্যমে কেবিন বুকিং সার্ভিসসহ আরো আধুনিক প্রযুক্তি সংবলিত এই লঞ্চ ইতোমধ্যে যাত্রীদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে।

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিশেষ সংখ্যা

You cannot copy content of this page