1. admin@protidinershomoy.com : admin :
  2. nasimriyad24@gmail.com : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৩:২৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
রিং আইডির কার্যক্রম পুনরায় চালুসহ পরিচালকের মুক্তির দাবি রামগঞ্জে নোঁয়াগাওবাসীর ভোটের আমানত রক্ষা করতে চান চেয়ারম্যান প্রার্থী তৌহিদ লন্ডনী ভাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স-এ চালু হয়েছে বিনা মূল্যে সিজার ও অপারেশন নাগরপুরে আওয়ামী লীগের কার্যকরী সভা ভাঙ্গায় ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থী লিটন মাতুব্বরের গনসংযোগ শহীদ শেখ রাসেলের ৫৫তম জন্মদিনে বিনম্র শ্রদ্ধা : হাসান ইকবাল তারুণ্যের জয়গান’কে ধারণ করে রাজশাহী বরেন্দ্র প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাকালীন কমিটি ঘোষণা  ইউসুফ ভূঁইয়া’র খালাতো ভাইয়ের মৃত্যুতে হাসান ইকবালের শোক প্রকাশ নাগরপুরে দশমী পূজার মধ্য দিয়ে শারদীয়া দুর্গোৎসবের সমাপ্ত নাগরপুরে এগার ইউনিয়নে ভোট ২৮ নভেম্বর

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় রাসেল বিল্লাল গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ
  • সময় : সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১২৩ জন পড়েছেন

নড়াইল পৌর এলাকার রায়পুর-উজিরপুর এলাকায় চার বছরের শিশু ধর্ষণের ঘটনাকে কেন্দ্র করে সদর হাসপাতালের চিকিৎসকদের বিভিন্ন ধরণের ভয়ভীতি, মিথ্যাচার ও হেয়প্রতিপন্নের অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশনের ভুয়া কর্মকর্তা রাসেল বিল্লালকে (২৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রোববার (২৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে তাকে শহরের মহিষখোলা এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর বিকেলে সদর আমলী আদালতের বিচারক জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নয়ন বড়ালের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দেন রাসেল বিল্লাল।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা নড়াইল সদর থানার এসআই এনামুল হক জানান, দোষ স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দী দেয়ার পর রাসেল বিল্লালকে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। এর আগে রোববার দুপুর ১২টার দিকে নড়াইল সদর হাসপাতালের আরএমও ডাক্তার মশিউর রহমান বাবু বাদী হয়ে রাসেলের বিরুদ্ধে সদর থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেন। তার বিরুদ্ধে ১০ কোটি টাকার মানহানি মামলা করা হয়েছে।

মামলার বাদী ডাক্তার মশিউর রহমান বাবু জানান, গত ৩০ আগস্ট রাতে নড়াইল পৌর এলাকার রায়পুর-উজিরপুর এলাকা থেকে চার বছরের একটি শিশুকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে আনা হয়। এরপর হাসপাতালের নারী চিকিৎসকের নেতৃত্বে মেডিকেল বোর্ড শিশুটিকে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে। তবে ধর্ষণের কোনো আলামত পাওয়া যায়নি।
তবে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ‘নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশন’ এবং ‘টিম তারুণ্য-১০০’ নামে দু’টি সংগঠনের নাম ভাঙিয়ে রাসেল বিল্লাল নামে এক যুবক ধর্ষণের ‘পজিটিভ’ রিপোর্ট দিতে সদর হাসপাতালের চিকিৎসকদের বিভিন্ন ধরণের ভয়ভীতি প্রদর্শন করে। এছাড়া চিকিৎসকদের নামে নানা মিথ্যাচার ও হেয়প্রতিপন্নমূলক কথাবার্তা বলে। মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন করেও নানা ধরণের অপপ্রচার চালায় রাসেল বিল্লাল।

অন্যদিকে, শিশুটিকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়ার পর রাসেল বিল্লাহ তার ফেসবুক আইডিতে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে অশ্লীল গালিগালাজ করেন। এ নিয়েও বিভিন্ন মহলে আলোচনা-সমালোচনা হয়।
জানা যায়, মোবাইল ফোনে গেমস ও ভিডিও দেখানোর প্রলোভন দেখিয়ে গত ৩০ আগস্ট দুপুরে নড়াইল পৌরসভার রায়পু্র-উজিরপুর এলাকায় চার বছরের শিশুকে প্রতিবেশি অপু বিশ্বাস (১৪) ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। তবে মেডিকেল রিপোর্টে ধর্ষণের কোনো আলামত পাওয়া যায়নি। #

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিশেষ সংখ্যা