1. admin@protidinershomoy.com : admin :
  2. nasimriyad24@gmail.com : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
  3. wpsupp-user@word.com : wp-needuser : wp-needuser
সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ১০:১৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
রাজশাহীর লক্ষীপুরে ওয়ানওয়ে খুলে দেওয়ার দাবিতে মানববন্ধন ভূল্লীতে ঋণের চাপ সইতে না পেরে গলায় ফাঁস দিয়ে প্রধান শিক্ষকের মৃত্যু ঠাকুরগাঁও‌য়ের পু‌লিশ সুপার পেলেন পিপিএম পদক মেয়াদোত্তীর্ণ ভূল্লী প্রেসক্লাবের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা রাজশাহী শাহ্ মখদুম কলেজের শিক্ষক জীবন কুমার ঘোষের পি-এইচ.ডি ডিগ্রী অর্জন ঠাকুরগাঁওয়ে ট্যাপেন্টাডোল ট্যাবলেট সহ দুইজন গ্রেফতার ঠাকুরগাঁওয়ে মন্দিরের ভিত্তি প্রস্তরের উদ্বোধন ফেসবুকে প্রতারণা, ঠাকুরগাঁওয়ে গ্রেফতার যুবক ৭ অভিযোগে ডিডি বাদশার বিদায়, রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডে স্বস্তি ক্যান্ট: পাবলিকে বর্ণীল বসন্ত বরণ ও পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত

নাগরপুরে এক নারীকে পিটিয়ে হত্যা

মাসুদ রানা, নাগরপুর প্রতিনিধি
  • সময় : শনিবার, ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
  • ২২০ জন পড়েছেন

নাগরপুর(টাঙ্গাইল)প্রতিনিধি

টাঙ্গাইলের নাগরপুরে নুরভানু (৫৮) নামের এক নারী নৃশংসভাবে খুন হয়েছে। শনিবার সকালে অজ্ঞাতনামা ঘাতক নিজ বাড়ীতে তাকে পিটিয়ে হত্যা করে রান্না ঘরের সামনে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। উপজেলা সদরের দুয়াজানী গ্রামে মর্মান্তিক  এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত লালবানু ওই গ্রামের মো. বাবুল মিয়ার স্ত্রী। দিনের আলোতে নিজ বাড়িতে ওই নারীকে পিটিয়ে হত্যার পর ঘাতকরা কি ভাবে পগারপার হয়েছে এ নিয়ে  এলাকায় জোর গুঞ্জন চলছে।  এ দিকে মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে নাগরপুর থানার অফিসার ইর্নচাজ (ওসি) সরকার আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, মৃতের রক্তাক্ত লাশ উদ্বার করা হয়েছে। ওই পরিবারের ছেলে ও ছেলের বৌ সহ আরো কয়েক জনকে জিজ্ঞাসা বাদের জন্য আনা হয়েছে ।

এলাকাবাসী ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার সদর ইউনিয়নের দুয়াজানি গ্রামের মৃত. আব্দুল মিয়া তিন ছেলে সন্তান রেখে প্রায় ১২ বছর আগে মারা যায়। তার মৃত্যুও ২ বছর পর স্ত্রী লালভানু ফের বঙ্গবটিয়া গ্রামের তিন সন্তানের জনক মো. বাবুল মিয়াকে দ্বিতীয় বিয়ে করে নিজ বাড়ীতে বসবাস কওে আসছে। বাবুল মিয়া এ দিন সকালে বাড়ী থেকে কীটনাশক সার নিয়ে জমিতে যায়।  লাল ভানু সকালের খাবারের জন্য রান্না করতে যায়। এ সময় তাকে লাঠি দিয়ে কে বা কাহারা পিটিয়ে  হত্যা করে ফেলে রেখে চলে যায়।

নিহত নুরভানুর স্বামী বাবুল মিয়া বলেন, আমি রাতযাপন করে সকালে জমিতে সেচ দেওয়ার জন্য  সার নিয়ে চলে যাই। আনুমানিক ৮টার দিকে হত্যা কন্ডের  সংবাদ পাই। দ্রুত বাড়ীতে এসে রান্না ঘরের সামনে আমার স্ত্রীর রক্তাক্ত মৃতু দেহ পরে থাকতে দেখি।

এ দিকে এ হত্যা কান্ডের মোটিভ সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া না গেলেও পারিবারিক কোলহের কারনে এ হত্যা কান্ড সংঘটিত হতে পারে বলে পুলিশ প্রাথমিক ভাবে ধারনা করছে।

এ ব্যপারে নাগরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. জাহাঙ্গীর আলম জানান, ঘটনাস্থল থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য প্রেরন করা হয়েছে। আইনগত বিষয়টি প্রক্রিয়াধিন রয়েছে।

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিশেষ সংখ্যা

%d bloggers like this: