1. admin@protidinershomoy.com : admin :
  2. nasimriyad24@gmail.com : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১১:২৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম
ঠাকুরগাঁওয়ে ট্যাপেন্টাডোল ট্যাবলেট সহ দুইজন গ্রেফতার ঠাকুরগাঁওয়ে মন্দিরের ভিত্তি প্রস্তরের উদ্বোধন ফেসবুকে প্রতারণা, ঠাকুরগাঁওয়ে গ্রেফতার যুবক ৭ অভিযোগে ডিডি বাদশার বিদায়, রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডে স্বস্তি ক্যান্ট: পাবলিকে বর্ণীল বসন্ত বরণ ও পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত বোদা হাইওয়ে থানা পুলিশের সেবা সপ্তাহ ২০২৪ পালিত বঙ্গবন্ধু ডিজিটাল মিউজিয়াম পরিদর্শন করলেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী আমাদের শক্তির মূল উৎস হলো একুশের চেতনা: হাসান ইকবাল শীতকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত কুমারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে বার্ষিক পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

লোহাগড়ার ইতনায় ২শত বছরের বুড়ো ঠাকুরের পুজা ও ধর্মীয় অনুষ্ঠানের উদ্বোধন

জেলা প্রতিনিধি নড়াইল
  • সময় : বুধবার, ২৬ এপ্রিল, ২০২৩
  • ৭৯ জন পড়েছেন

নড়াইল জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ্যাডঃ সুবাস চন্দ্র বোস ইতনায় ২শত বছরের ৩দিন ব্যাপি বুড়ো ঠাকুরের পুজা ও ধর্মীয় অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন।

মঙ্গলবার(২৫এপ্রিল)বিকালে ইতনা ইউনিয়নের দৌলতপুর গ্রামে বুড়ো ঠাকুকের হিজল তলায় ইতনা মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ও বুড়ো ঠাকুরের মেলার উদযাপন কমিটির আহবায়ক অনিদ্য কুমার সরকারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, লোহাগড়া উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন-সাধারণ সস্পাদক ও ইতনা ইউপির চেয়ারম্যান শেখ সিহানুক রহমান, মেলার প্রধান উপদেষ্টা ইউপি সদস্য তমাল কৃষ্ণ কুন্ড, উদযাপন কমিটির যুগ্ম-আহব্বায়ক বিজন সেন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী পলাশ হাজরা,সাংস্কৃতিক আহব্বায়ক নারায়ণ বিশ্বাস, অলোক কুমার সাহা, প্রকাশ কুমার বিশ্বাস,বিপ্লব সাহা প্রমুখ।

উল্লেখ্য প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও বৈশাখের ১ম সপ্তাহে শুরু হওয়ার কথা থাকলেও রমজান কারনে মঙ্গলবার থেকে ৩ দিন ব্যাপী এ মেলা শুরু হয়েছে। সকাল থেকে বিভিন্ন জেলার হাজার হাজার দর্শনার্থী ও ভক্তবৃন্দের সমাগম ঘটতে থাকে। ভক্তবৃন্দরা তাদের জমির প্রথম ফসল ও ফল এনে বুড়ো ঠাকুরের আস্তানায় দান করেন।

জানা যায় প্রায় ২শ বছর আগে রানী রাশমনির আমলে এই সনাতন ধর্মাবলম্বী ধর্মীয় সাধকের আর্বিভাব ঘটে দৌলতপুর ও ইতনার মাঝে তেপান্তরের নির্জন মাঠের পাশে হিজল তলায়। সেই থেকে এই ধর্মীয় সাধকের অনেক ভক্ত এমনকি রানি রাশমনিও তার ভক্ত হন। তখন থেকেই বয়ে আসছে এই ধর্মীয় অনুষ্ঠান ও মেলা। মেলায় আগত ভক্তবৃন্দ জানান বুড়ো ঠাকুরের মেলায় আমরা প্রতি বছর আসি। এখানে আসলে আমাদের মনোবাসনা পূর্ন হয়। এই পুজায় ও মেলায় সকল ধর্মের দর্শনার্থী আসে। এখানে সনাতন ধর্মের কীর্তন হয়। ভক্তরা পুজার জন্য প্রসাদ দান করেন।#

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিশেষ সংখ্যা

%d bloggers like this: