1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ১০:৪৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম
শিক্ষক হত্যার প্রতিবাদে নাগরপুরে মানববন্ধন ভারতের পুলিশ কমিশনারের আমন্ত্রণে মাদক বিরোধী সেমিনার ও রেলিতে বাংলাদেশের রসায়নবিদ ডক্টর মোঃ জাফর ইকবাল জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শক্ত হাতে আওয়ামী লীগের নেতৃত্ব দিচ্ছেন: হাসান ইকবাল নাগরপুরে ৫০ গ্রাম হেরোইনসহ এক মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার বন্ধ হচ্ছে ঠাকুরগাঁও পৌরসভার মধ্যে টোল আদায় ভারতে জেল খেটে বেনাপোল দিয়ে দেশে ফিরেছে ২৫ জন তরুন তরুনী সিলেটে বর্ন্যার্তদের মাঝে ইঞ্জিনিয়ার মোঃ জসীম উদ্দিন প্রধানের উদ্যোগে উপহার সামগ্রী বিতরণ  ঠাকুরগাঁওয়ে শহীদ জননী জাহানারা ইমামের ২৮তম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত ফুলবাড়ীতে মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার রোধকল্পে কর্মশালা অনুষ্ঠিত পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষে নাগরপুরে নানা কর্মসূচি

কোথায় হবে কিশোরগঞ্জের করোনা রোগীদের চিকিৎসা?

সংবাদ দাতার নাম
  • সময় : সোমবার, ১৩ এপ্রিল, ২০২০
  • ৩৩৪ জন পড়েছেন

মো: জুবায়দুল ইসলাম লাদেন, কিশোরগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:

বিতর্কের মুখে আগের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এলো কিশোরগঞ্জ জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটি। কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতাল নয়, নবনির্মিত শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেই করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা হবে।

রোববার বিকেলে জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক সিভিল সার্জন ডা. মো. মুজিবুর রহমান সভা শেষে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গত ৮ এপ্রিল কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে শুধুমাত্র করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেয়া হবে বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছিল জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটি। এর পরই শুরু হয় বিতর্ক। প্রায় ৬শ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত সদ্য চালু হওয়া আধুনিক সুযোগ-সুবিধা সমৃদ্ধ শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালকে বাদ দিয়ে ন্যূনতম সুযোগ-সুবিধা না থাকা জেলা সদর হাসপাতালে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেয়ার সিদ্ধান্তে মানুষের মধ্যে চরম ক্ষোভ দেখা দিয়েছিল।

এদিকে সরকার ঘোষিত লকডাউন না মেনে রোববার বিকেলে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনা রোগীদের চিকিৎসা না দেয়ার দাবিতে মানববন্ধন করেছে স্থানীয় একটি মহল। মেডিকেল কলেজের সামনে অনুষ্ঠিত এ মানববন্ধনে যশোদল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকসহ অন্যরা অংশ নেন।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, রোববার পর্যন্ত (১২ এপ্রিল) কিশোরগঞ্জে একজনের করোনা ভাইরাসে মৃত্যু এবং আরও ১১ জন করোনা আক্রান্ত রোগী আছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় ৫০ জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়। এ পর্যন্ত উপসর্গ থাকা ১৭৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১১ জনের দেহে কোভিড-১৯ এর অস্তিত্ব পাওয়া গেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় ২২৪ জনসহ এ পর্যন্ত কোয়ারেন্টাইনে থেকেছেন ১৮৪৬ জন। এখনও কোয়ারেন্টাইনে আছেন ৪৬৬ জন। এ অবস্থায় জেলায় ব্যাপকহারে করোনা ছড়িয়ে পড়ার আশংকার মধ্যে জেলাবাসী। এ অবস্থায় করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসা কোথায় হবে এ নিয়ে দেখা দিয়েছে অনিশ্চয়তা।

জানা গেছে, করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি জেলা প্রশাসক মো. সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে কালেক্টরেট সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সভায় আগের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এ জন্য মেডিকেলে আলাদা করোনা ইউনিট করার সিদ্ধান্ত হয়।

সভায় অন্যান্যের মধ্যে কমিটির উপদেষ্টা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট জিল্লুর রহমান, কমিটির সদস্য সচিব সিভিল সার্জন ডা. মো. মুজিবুর রহমান, পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাড. শাহ আজিজুল হক, শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজের পরিচালক ডা. সৈয়দ মঞ্জুরুল হক, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. আব্দুল্লাহ আল মাসউদ, কিশোরগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মাহমুদ পারভেজ, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু, জেলা বিএমএ সম্পাদক ডা. আব্দুল ওয়াহাব বাদল, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মামুন আল মাসুদ খানসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সভায় অংশ নেয়া অ্যাড. শাহ আজিজুল হক জানান, কিশোরগঞ্জের মানুষের সার্বিক অবস্থা বিবেচনা করে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা দেয়া হবে। এরই মধ্যে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি হওয়া করোনা আক্রান্ত রোগীদের মেডিকেলে ফিরিয়ে নেয়া হবে।

কিশোরগঞ্জের জেলা প্রশাসক সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরী বলেন, সভার সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত মোতাবেক আগের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিশেষ সংখ্যা