1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ০২:৩৭ পূর্বাহ্ন

উপজেলা পরিষদ ভবন নির্মানে দ্রত টেন্ডার বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর দিকে তাকিয়ে চৌহালীর মানুষ

সংবাদ দাতার নাম
  • সময় : বুধবার, ১৩ মে, ২০২০
  • ১৬৩ জন পড়েছেন

মোঃ ইমরান হোসেন আপন, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

সিরাজগঞ্জের চৌহালী উপজেলা পরিষদ ভবন নির্মান করা হলে বাঁচবে সময় কমবে ভোগান্তি। এ দাবি এনায়েতপুর-চৌহালীর সর্বমহলের। উপজেলা পরিষদের ভবন নির্মানে দ্রুত টেন্ডার বাস্তবায়নে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর শেখ হাসিনার দিকে তাকিয়ে আছে চৌহালী উপজেলা পরিষদের কর্মকর্তা-কর্মচারিসহ সর্বস্তরের মানুষের।
প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়ন ও প্রতিশ্রুতি গ্রাম হবে শহর বাস্তবায়নের লক্ষে সিরাজগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী চৌহালী উপজেলা পরিষদ এর জমি অধিগ্রহন শেষ ভবন নির্মানের টেন্ডার দ্রুত বাস্তবায়ন দাবি উপজেলা পরিষদসহ এলাকা বাসির। উপজেলা পরিষদ নির্মানের নতুন স্থান কোদালিয়া গ্রাম, সরকারি দপ্তর বাস্তবায়নে ৭ বছর পার হলেও আলোর মুখ দেখছে না, সরকারি কলেজ দখল করে রাখায় সর্বমহলের নানা মন্তব্য। দেশের উন্নয়ন আরও বেগমান করতে অতিশিগ্যই টেহুার বাস্তবায়ন জরুরী।
চৌহালী উপজেলা পরিষদের নিজস্ব জায়গা নির্ধারণ ও ভুমি অধিগ্রহন সম্পন্ন, জোড়া হত্যা মামলার আসামীদের জমি বাদে সব জমি অধিগ্রহন শেষ। ভবনের জন্য টেন্ডার অতীব জরুরী হয়ে পরেছে। প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়ন ও ডিজিটাল বাংলাদেশ অব্যাহত রাখতে উপজেলা বাস্তবায়ন কমিটি সহ দেশের সর্বমহলের কাছে এলাকাবাসি জোর দাবি জমি অধিগ্রহনের কাজ শেষ ভবন নির্মান জরুরী ।
সিরাজগঞ্জ-৫ আসনে জাতীয় সাংসদ,উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান,উপজেলা প্রশাসন, জেলা প্রশাসক, জেলা পরিষদসহ সর্বমহলের দৃষ্টি প্রত্যাশা করছে এলাকাবাসি। উপজেলা পরিষদ বিলুপ্তির প্রায় ৭ বছর এখন পর্যন্ত আলোর মুখ দেখছে না। এদিকে ২০১৩/১৪ অর্থবছর থেকে উপজেলা বাস্তবায়নের দাবিতে কাজ করে যাওয়া চৌহালী উন্নয়ন কমিটির কাছে পরিষদের নতুন ভবন অতিশিগ্রই টেন্ডার বাস্তবায়ন দেখতে চায় ভোটাররা।
চৌহালী উপজেলা থেকে সরকার প্রতি বছর বিপুল অংকের রাজস্ব আদায় করলেও উপজেলা পরিষদ এর নিজস্ব ভবন ও স্ব-স্ব দপ্তর না থাকায় চৌহালী ও এনায়েতপুরের কয়েক লক্ষ মানুষ নাগরিক সুবিধা ও উন্নয়ন থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। উপজেলা পরিষদের অধীনে সবগুলো সরকারি দপ্তর এখনো ভাসমান,চৌহালী সরকারি কলেজ এর বিভিন্ন ঘর ও ভবন দখল করে দাপ্তরিক কাজ-কর্ম অব্যাহত রাখায় কলেজের পাঠদান জিমিয়ে পরেছে মন্তব্য সর্ব মহলের। ভবনের টেন্ডার ও নির্মান বাস্তবায়ন প্রধানমন্ত্রীর দিকে তাকিয়ে আছে উপজেলা পরিষদ এর কর্মকর্তা-কর্মচারিসহ এনায়েতপুর ও চৌহালীর মানুষ। দপ্তর ভাসমানের প্রায় ৭ বছর সেবা দিতে কষ্ট পাহাড় সমান কেউ করে না সমাধান মন্তব্য গণমানুষের।
উপজেলা পরিষদের নতুন একাউরকৃত জমি কোদালিয়া গ্রাম। এখনও আলোর মুখ দেখছেনা।

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *