1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৮:৫১ অপরাহ্ন

বেনাপোলে বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী ও শিশু দিবস উপলক্ষে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা

সংবাদ দাতার নাম
  • সময় : বৃহস্পতিবার, ১৭ মার্চ, ২০২২
  • ৮২ জন পড়েছেন

সেলিম রেজা তাজ,স্টাফ রিপোর্টারঃ-
বেনাপোলে বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী ও শিশু দিবস উপলক্ষে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানালেন বেনাপোল মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড ৷

মোঃসেলিম রেজা তাজ,স্টাফ রিপোর্টারঃ-
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবসে শার্শা উপজেলার বেনাপোল রেল স্টেশন রোডে মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স এর সামনে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করেন শার্শা উপজেলা ও বেনাপোল মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড ৷

বৃহস্পতিবার (১৭ মার্চ) সকালের দিকে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন এই ঐতিহ্যবাহি সংগঠনের নেতা-কর্মীরা।

এ সময় উপস্তিত ছিলেন উপজেলা সহকারী কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা মাষ্টার মোহাম্মদ আলী, পৌর মুক্তিযোদ্ধা কমানন্ডার-বীর মুক্তিযোদ্ধা শাহ আলম হাওলাদার, ডেপুটি কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মান্নান, বাহাদুর পুর ইউপি কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা দ্বীন মোহাম্মদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদুল্ল্যাহ বাবু সহ বীর মুক্তিযোদ্ধা গন এবং পৌর মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড আহ্বায়ক কামরুজ্জামান তরু, মিয়াল আলী,ওসমান এনামুল হক জুয়েল,সফিউর রহমান,রাসেল হাওলাদার,
ইয়াসিন হাওলাদার ওসমান গনি, আবুল হাসেম ,বাবলুর রহমান ,লাবু হোসেন ,জিল্লুর রহমান , নয়ন হোসেন, ইমরান হোসেন ,মিল্টন, আব্দুর রহিম, রিংকি, সাজিন, সিয়াম সহ পরিবাবার ও বীর সন্তানবৃন্দরা।

সার্বিক উদযাপন ব্যবস্হাপনায় ও সমন্বয়ক যশোর জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সমাজ কল্যান বিষয়ক সম্পাদক,ফারুক হোসেন উজ্জ্বল l

আজ থেকে ১০০ বছর আগে ১৭ মার্চ সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি বঙ্গবন্ধু তৎকালীন গোপালগঞ্জ মহকুমার (বর্তমানে জেলা) টুঙ্গিপাড়া গ্রামের একটি সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। শেখ লুৎফর রহমান ও সায়রা খাতুনের ছয় সন্তানের মধ্যে তিনি ছিলেন তৃতীয়।

এ দিবসটি জাতীয় শিশু দিবস হিসেবেও পালিত হচ্ছে। সরকার বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে ২০২০ সালের ১৭ মার্চ থেকে ২০২১ সালের ২৬ মার্চ পর্যন্ত সময়কে ‘মুজিববর্ষ’ হিসেবে ঘোষণা করে। পরে, এ বছরের ১৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত তা বর্ধিত করা হয়। বাংলাদেশের পাশাপাশি ইউনেস্কোর উদ্যোগে বিশ্বব্যাপী মুজিববর্ষ পালন করা হচ্ছে।

সংবাদটি আপনার সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরোও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

বিশেষ সংখ্যা